• বুধবার, ০১ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০৪:৩২ পূর্বাহ্ন
  • English

নানা অভিযোগে ঢাবির ১১৪ শিক্ষার্থীকে বহিষ্কার

নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশ: বুধবার, ২৫ জানুয়ারী, ২০২৩

নানা অভিযোগে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় এবং বিশ্ববিদ্যালয়ের অধিভুক্ত বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের ১১৪ শিক্ষার্থীকে বহিষ্কারের সুপারিশ করেছে বিশ্ববিদ্যালয়ের শৃঙ্খলা বোর্ড। এর মধ্যে গত নভেম্বরে ক্যাম্পাসের রাজু ভাস্কর্যের সামনে রাতের বেলা বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের এক ছাত্রীকে হেনস্তা ও মারধরের ঘটনায় অভিযুক্ত মাস্টারদা সূর্য সেন হলের ছাত্র নাজমুল হোসেন ওরফে জিম নাজমুলকে স্থায়ী বহিষ্কারের সুপারিশ করা হয়েছে। এসব সুপারিশের বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেবে বিশ্ববিদ্যালয়ের সর্বোচ্চ নীতিনির্ধারণী ফোরাম সিন্ডিকেট।

 

বুধবার সন্ধ্যায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শৃঙ্খলা বোর্ডের এক সভায় এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। বহিষ্কৃতদের মধ্যে ১০৯ জনকে পরীক্ষায় অসদুপায় অবলম্বন ও পরীক্ষকদের সঙ্গে অসদাচরণের দায়ে দুই থেকে চার বছর পর্যন্ত বহিষ্কারের সুপারিশ করা হয়েছে। বাকি পাঁচজনকে বহিষ্কারের সুপারিশ করা হয়েছে অন্যান্য অভিযোগে।

 

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর ও বিশ্ববিদ্যালয়ের শৃঙ্খলা বোর্ডের সদস্যসচিব অধ্যাপক এ কে এম গোলাম রব্বানী বলেন, ১০৯ শিক্ষার্থীকে দুই থেকে চার বছর পর্যন্ত বহিষ্কারের সুপারিশ করা হয়েছে। এ ছাড়া নানা অভিযোগে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের পাঁচ শিক্ষার্থীকে বহিষ্কারের সুপারিশ করা হয়েছে। এর মধ্যে এক নারীকে লাঞ্ছিত করার দায়ে সূর্য সেন হলের ছাত্র জিম নাজমুলকে স্থায়ী বহিষ্কারের সুপারিশ করা হয়েছে।

 

অন্য চারজনের দুজনকে (তারা আইবিএর ছাত্র) দুই বছর ও অন্য দুজনকে (একজন আইবিএ, আরেকজন চারুকলার) এক বছরের জন্য বহিষ্কারের সুপারিশ করা হয়েছে। এসব সুপারিশের বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত হবে সিন্ডিকেটে।

 

এর আগে গত বছরের ৩১ অক্টোবর রাত আড়াইটার দিকে ঢাবির টিএসসিতে এক নারীর ওপর চড়াও হন জিম নাজমুল। ওই নারীর অভিযোগ, ঘটনার সময় জিম মদ্যপ অবস্থায় ছিলেন।

ভুক্তভোগী ওই নারীর অভিযোগ, মোবাইল ফোন ছিনিয়ে নেয়াসহ তখন মারধরও করা হয় তাকে। অবশেষে গণমাধ্যমের উপস্থিতিতে সটকে পড়েন জিম।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরও খবর